দেশের আর্থিক বিকাশে পর্যটন অভিন্ন চালিকাশক্তি হয়ে উঠতে পারে

0
410
Incredible India
Incredible India

দেশের আর্থিক বিকাশে পর্যটন অভিন্ন চালিকাশক্তি হয়ে উঠতে পারে

কলকাতা, ০৫ অক্টোবর, ২০১৮

দেশে আর্থিক বিকাশের ক্ষেত্রে পর্যটন এক অভিন্ন চালিকাশক্তি হয়ে উঠতে পারে। তবে, এই প্রয়াসে সমগ্র পর্যটন ব্যবস্হার সঙ্গে যুক্ত সংশ্লিষ্ট সব পক্ষের সহযোগিতা প্রয়োজন। বুধবার কলকাতায় ‘পর্যটনপর্ব’ উদযাপন উপলক্ষে এক সাংবাদিক সম্মেলনে এ কথা বলেন, ইন্ডিয়া ট্যুরিজিমের পূর্বাঞ্চলীয় নির্দেশক শ্রী জেপি শ। সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ও পর্যটনের গুরুত্বের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, পর্যটন ব্যবস্হার সঙ্গে যুক্ত সব পক্ষের মধ্যে সচেতনতা গড়ে তোলার ক্ষেত্রে ‘পর্যটনপর্বে’র বিশেষ ভূমিকা রয়েছে। দেশের অগ্রগতি ও উন্নয়নের জন্য পর্যটনের প্রসারে ‘পর্যটনপর্ব’ এক অপরিহার্য ভূমিকা পালন করেছে বলেও তিনি অভিমত প্রকাশ করেন। ‘অতিথি দেবঃ ভবঃ’- এই মন্ত্রে উজ্জিবীত হয়ে সাধারণ মানুষকে তার নিজের দেশ সম্পর্কে সচেতন ও সংবেদনশীল করে তোলার জন্য শ্রী শ সংবাদমাধ্যমগুলির প্রতি আবেদন জানান।

পূর্বাঞ্চলীয় নির্দেশক আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রীর দূরদৃষ্টি এবং পর্যটন মন্ত্রকের বিভিন্ন উদ্যোগের ফলে সারা বিশ্বজুড়ে ভারত সম্বন্ধে এক ইতিবাচক মনোভাব তৈরি হচ্ছে। এই বিষয়টিকে বিবেচনায় রেখে দেশের আর্থিক বিকাশে পর্যটন শিল্প এক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে। ইকো-ট্যুরিজম এবং রোমাঞ্চ পর্যটনের নতুন নতুন দিক খুঁজে বার করার ক্ষেত্রে পর্যটনের বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে বলেও তিনি মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, ‘স্বচ্ছতাই সেবা’ উদ্যোগকে সাধারণ মানুষের মনে প্রোথিত করতে হবে, যাতে পর্যটনের প্রসারে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখার ইতিবাচক দিকগুলি প্রতিফলিত হয়।

শ্রী শ আরও জানান, অতুল্য ভারত ও ইন্ডিয়া ট্যুরিজমের বিভিন্ন উদ্যোগের অঙ্গ হিসেবে পর্যটন মন্ত্রক ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে পর্যটনের প্রসারে উৎসাহ দিচ্ছে। পশ্চিমবঙ্গে ‘অতুল্য ভারত’ সম্পর্কিত প্রয়াসগুলি সচেতনতা বাড়াতে এবং পর্যটনের প্রসারে এক অনুকূল বাতাবরন গড়ে তুলতে যথেষ্ট কার্যকর ভূমিকা নিয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।