২৪ তম দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা বইমেলা‌‌র উদ্বোধনে উচ্চশিক্ষা মন্ত্রী ড. পার্থ চট্টোপাধ্যায়

0
748
Bhangor Book Fair
Bhangor Book Fair

২৪ তম দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা বইমেলা‌‌র উদ্বোধনে উচ্চশিক্ষা মন্ত্রী ড. পার্থ চট্টোপাধ্যায়

বিশেষ প্রতিবেদক, ভাঙড়: ২৩ জানুয়ারি, রবিবার ভাঙড় কলেজ মাঠে ২৪ তম দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা বইমেলা‌‌র আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করলেন রাজ্যের উচ্চশিক্ষা মন্ত্রী ড. পার্থ চট্টোপাধ্যায়। উপস্থিত ছিলেন কবি সুবোধ সরকার, প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জনশিক্ষা ও গ্রন্থগার ফতরের মন্ত্রী সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী, রাজ্যের অন্যতম মন্ত্রী ব্রাত্য বসু, আবদুর রেজ্জাক মোল্লা, রাজ্যসভার সাংসদ ও কলম পত্রিকার সম্পাদক আহমদ হাসান ইমরান, সাংসদ শুভাশিস বিশ্বাস, ইদ্রিস আলি, বিধায়ক সৌকত মোল্লা, জেলা সভাধিপতি শামিমা শেখ, ভাঙড়ের প্রখ্যাত সমাজসেবী এম এ ওহাব, ভাঙড়ে জনপ্রিয় সমাজকর্মী ও জনপ্রতিনিধি আরাবুল ইসলাম, কাইজার আহমেদ, নান্নু হোসেন, অহিদুল ইসলাম, জাহাঙ্গীর আলম, ভাঙড়-১ বিডিও তথা বইমেলা কমিটির অন্যতম কর্মকর্তা সৌগত পাত্র, ভাঙড় মহাবিদ্যালয়ের অধ্যাক্ষ বীর বিক্রম রায় সহ এলাকার বিশিষ্ট অতিথিবৃন্দ ও ব্যক্তিত্বরা।

জেলা বইমেলা কমিটির পক্ষ থেকে ভাঙড় এলাকার ভূমিপুত্র কবি ও উদার আকাশ পত্রিকার সম্পাদক ফারুক আহমেদকে সম্মানিত করা হয় জেলা বইমেলার মঞ্চে।
এক সদস্য জানান, ভাঙড় মহাবিদ্যালয়ের মাঠে ২৩ জানুয়ারি শুরু হল জেলা বইমেলা। বইমেলা চলবে ২৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। প্রতিদিন দুপুর ২ থেকে রাত্রি ৮ টা পর্যন্ত চলবে এই‌ বইমেলা। এই বইমেলার মূল মঞ্চে প্রতিদিন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পাশাপাশি চলবে আলোচনাসভা। অংশ নেবেন কবি, সাহিত্যিক ও গবেষকবৃন্দ। বইপ্রেমীদের জন্য এই মহা আয়োজন করছেন জেলা বইমেলা কমিটি। বিশেষ বার্তা বহন করছে এবারের জেলার ২৪ তম বইমেলা। বইমেলা সফল করতে বহু প্রকাশক অংশ নিয়েছে এই দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা বইমেলাতে। এক অন্য ভাঙড়কে আবিষ্কার করছে বইমেলায় আগত বইপ্রেমীরা। ভাঙড়ের প্রকাশক উদার আকাশ অংশ নিয়েছে বইমেলাতে। বইমেলার উদ্যোগ নেওয়া কর্তারা আশা রাখছেন, ‌‌এই বছর এই জেলা বইমেলা সবার মনে দাগ কাটবেই।
বইমেলার “স্মরণিকা”ও প্রকাশ করা হবে দায়িত্বে আছেন ফিরোজ আহমেদ।
জেলা বইমেলা উদ্বোধনের সময় সকলের বক্তব্য মন ছুঁয়ে যায়।
[8:10 AM, 1/24/2019] Faruque Ahmed Press: ২৪ তম দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা বইমেলা‌‌র উদ্বোধনে উচ্চশিক্ষা মন্ত্রী ড. পার্থ চট্টোপাধ্যায়

বিশেষ প্রতিবেদক, ভাঙড়: ২৩ জানুয়ারি, রবিবার ভাঙড় কলেজ মাঠে ২৪ তম দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা বইমেলা‌‌র আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করলেন রাজ্যের উচ্চশিক্ষা মন্ত্রী ড. পার্থ চট্টোপাধ্যায়। উপস্থিত ছিলেন কবি সুবোধ সরকার, প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জনশিক্ষা ও গ্রন্থগার ফতরের মন্ত্রী সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী, রাজ্যের অন্যতম মন্ত্রী ব্রাত্য বসু, আবদুর রেজ্জাক মোল্লা, রাজ্যসভার সাংসদ ও কলম পত্রিকার সম্পাদক আহমদ হাসান ইমরান, সাংসদ শুভাশিস চক্রবর্তী, ইদ্রিস আলি, বিধায়ক সৌকত মোল্লা, জেলা সভাধিপতি শামিমা শেখ, ভাঙড়ের প্রখ্যাত সমাজসেবী এম এ ওহাব, ভাঙড়ে জনপ্রিয় সমাজকর্মী ও জনপ্রতিনিধি আরাবুল ইসলাম, কাইজার আহমেদ, নান্নু হোসেন, অহিদুল ইসলাম, জাহাঙ্গীর আলম, ভাঙড়-১ বিডিও তথা বইমেলা কমিটির অন্যতম কর্মকর্তা সৌগত পাত্র, ভাঙড় মহাবিদ্যালয়ের অধ্যাক্ষ বীর বিক্রম রায় সহ এলাকার বিশিষ্ট অতিথিবৃন্দ ও ব্যক্তিত্বরা।

জেলা বইমেলা কমিটির পক্ষ থেকে ভাঙড় এলাকার ভূমিপুত্র কবি ও উদার আকাশ পত্রিকার সম্পাদক ফারুক আহমেদকে সম্মানিত করা হয় জেলা বইমেলার মঞ্চে।
এক সদস্য জানান, ভাঙড় মহাবিদ্যালয়ের মাঠে ২৩ জানুয়ারি শুরু হল জেলা বইমেলা। বইমেলা চলবে ২৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। প্রতিদিন দুপুর ২ থেকে রাত্রি ৮ টা পর্যন্ত চলবে এই‌ বইমেলা। এই বইমেলার মূল মঞ্চে প্রতিদিন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পাশাপাশি চলবে আলোচনাসভা। অংশ নেবেন কবি, সাহিত্যিক ও গবেষকবৃন্দ। বইপ্রেমীদের জন্য এই মহা আয়োজন করছেন জেলা বইমেলা কমিটি। বিশেষ বার্তা বহন করছে এবারের জেলার ২৪ তম বইমেলা। বইমেলা সফল করতে বহু প্রকাশক অংশ নিয়েছে এই দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা বইমেলাতে। এক অন্য ভাঙড়কে আবিষ্কার করছে বইমেলায় আগত বইপ্রেমীরা। ভাঙড়ের প্রকাশক উদার আকাশ অংশ নিয়েছে বইমেলাতে। বইমেলার উদ্যোগ নেওয়া কর্তারা আশা রাখছেন, ‌‌এই বছর এই জেলা বইমেলা সবার মনে দাগ কাটবেই।
বইমেলার “স্মরণিকা”ও প্রকাশ করা হবে দায়িত্বে আছেন ফিরোজ আহমেদ।
জেলা বইমেলা উদ্বোধনের সময় সকলের বক্তব্য মন ছুঁয়ে যায়।