মুর্শিদাবাদ থেকে সুন্দরবনে ক্ষতিগ্রস্তদের ত্রাণ পৌছালো সাগরদীঘি উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট

0
188
মুর্শিদাবাদ থেকে সুন্দরবনে ক্ষতিগ্রস্তদের ত্রাণ পৌছালো সাগরদীঘি উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট
মুর্শিদাবাদ থেকে সুন্দরবনে ক্ষতিগ্রস্তদের ত্রাণ পৌছালো সাগরদীঘি উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট

মুর্শিদাবাদ থেকে সুন্দরবনে ক্ষতিগ্রস্তদের ত্রাণ পৌছালো সাগরদীঘি উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট

রাজকুমার দাস

মুর্শিদাবাদ জেলার সাগরদিঘী থেকে কয়েকশো কিলোমিটার দূরে গিয়ে মানুষের পাশে দাঁড়ালো.. সাগরদীঘি উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট।নিজেদের জেলার মধ্যে থেমে থাকেনি।পৌঁছে গেছে তাই সুন্দরবনের বাসন্তী ব্লকের বেশ কিছু স্থানে।

আমফান নামক যে বিধ্বংসী ঝড় কেড়ে নিয়েছিল বহু মানুষের প্রাণ, গৃহহীন হয়েছিল হাজার হাজার মানুষ, ঝড়ের তান্ডব পেরিয়েছে বেশ কিছুদিন, তবুও মানুষ স্বাভাবিক জীবন-যাপনে ফিরে আসতে পারেনি অনেক জায়গায়..

আর ঠিক এরকমই একটা জায়গায় সাগরদিঘী উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট পৌঁছে যায় তাদের সাহায্য নিয়ে, সুন্দরবন এলাকার বাসন্তীতে তারা যায় এবং প্রায় শত পরিবারের হাতে খাদ্য সামগ্রী তুলে দিয়েছে তারা.. প্রত্যেকের হাতে তারা 5 কেজি চাল,250 গ্রাম ডাল, 1 কেজি আলু,250 গ্রাম মুড়ি 1 প্যাকেট সোয়াবিন ও 1 প্যাকেট বিস্কুট তুলে দেয়|

বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা ও সরকার দ্বারা বিভিন্ন সাহায্য পাওয়া সত্ত্বেও অনেক মানুষ এখনো খুব করুণ অবস্থায় রয়েছে এবং তারা এই খাদ্য সামগ্রী পেয়ে খুব আনন্দিত বোধ করেছেন এবং তারা এটাও বলেছেন যে এত দূর থেকে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা এসে আমাদের যে সাহায্য করলো তাতে মনে হচ্ছে যে সত্যিই ঈশ্বর আমাদের জন্য দেবদূতদের পাঠিয়েছেন|

সাগরদিঘী উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টের সভাপতি অভিজিৎ ফুলমালির সঙ্গে কথা বলে জানতে পারি যে তারা এই ক্যাম্পের সিদ্ধান্ত হঠাৎ করে নেয় এবং খুব কম সময়ের মধ্যে যতটুকু সম্ভব তারা চেষ্টা করেছেন এবং তারা সফল হয়েছেন|

তাদের এই কাজকে আমরা সত্যিই কুর্নিশ জানাই এবং অনেক অনেক ধন্যবাদ জানাই সাগরদিঘী উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট কে তাদের এই মহৎ উদ্দেশ্য এবং মহৎ কাজ সফল করার জন্য।
মুর্শিদাবাদ সাগরদীঘি উইনার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট এর তরফে এদিন উপস্থিত ছিলেন
সভাপতি -অভিজিৎ ফুলমালী র পাশাপাশি সংগঠনের
সম্পাদক -সঞ্জীব দাস সহ মির্জা জজবুল ,টিঙ্কু সেখ ,,উজির সেখ,পাপ্পু দাসগুপ্ত ,আনারুল সেখ,রবি সেখ ওবিক্রম দাসগুপ্ত সহ অন্যান্য সদস্য রা।
সুন্দরবনের সুন্দর সুন্দরী গাছের অভয়ারণ্য তার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য কে নিয়ে আমাদের বাংলাকে সদাই সবুজে ভরিয়ে রেখেছে।দুর্যোগ্যের সাথে লড়াই করা মানুষদের পাশে থেকে উক্ত সংস্থা বেঁচে থাকার পরিবেশকে সচল করে দিলো তা নির্দ্বিধায় বলা যায়।