বর্তমান অক্সিজেন সংকটে মূল্যবান বিকল্প হল ওইইউ

0
165
CMERI Main Building
CMERI Main Building
ShyamSundarCoJwellers

বর্তমান অক্সিজেন সংকটে মূল্যবান বিকল্প হল ওইইউ
সিএসআইআর-সিএমইআরআই প্রযুক্তি ব্যবহারে দেশীয় উৎপাদক-প্রস্তুত বহনযোগ্য অক্সিজেন কনসেনট্রেটর সংগ্রহে পিএম কেয়ার্স তহবিলের অর্থ মঞ্জুর করল কেন্দ্র

By PIB Kolkata

কলকাতা, ৪ মে, ২০২১

দুর্গাপুরের সিএসআইআর-সিএমইআরআই-এর অধিকর্তা অধ্যাপক (ডঃ) হরিশ হিরানী আজ একটি ওয়েবিনারে বক্তব্য রেখে বলেছেন, আমাদের দেশ পর্যাপ্ত পরিমাণে অক্সিজেন উৎপাদন করছে, যা রোগীদের চাহিদা পূরণ করতে সমর্থ। তবে, পরিবহণ এবং সরবরাহ-শৃঙ্খল বজায় রাখার ক্ষেত্রে কিছু বাধা হচ্ছে, যেদিকে নজর দেওয়া প্রয়োজন। তিনি বলেন, সিএসআইআর-সিএমইআরআই-এর অক্সিজেন বর্ধক ইউনিট (ওইইউ) বর্তমানে অক্সিজেন সিলিন্ডারের সংকট দূর করতে সাহায্য করবে। পাশাপাশি, পরিবহণ খরচেও সাশ্রয় আসবে। অধ্যাপক (ডঃ) হিরানী চলতি আজকের ওয়েবিনারে বক্তব্য রেখে জানান, বর্তমান অতিমারীর দ্বিতীয় ঢেউ-এর প্রেক্ষিতে এ বিষয়ে একাধিক ওয়েবিনার আয়োজন করে অতিমারীর সঙ্গে লড়াইয়ে বিভিন্ন প্রযুক্তিগত উদ্ভাবন সম্পর্কে মানুষকে সচেতন করা যায়, যাতে, ঐক্যবদ্ধভাবে এর বিরুদ্ধে লড়াই করা যায়। প্রসঙ্গত, সোমবার দুর্গাপুরের সিএসআইআর-সিএমইআরআই এবং বারাণসীর এমএসএমই-ডিআই যৌথভাবে ওইইউ-এর গুনাবলী নিয়ে আলোচনার জন্য একটি ওয়েবিনারের আয়োজন করে। এই ওয়েবিনারে অধ্যাপক (ডঃ) হিরানী ছাড়াও বক্তব্য রাখেন বারাণসী অঞ্চলের যুগ্ম শিল্প কমিশনার শ্রী উমেশ সিং, বারাণসীর এমএসএমই-ডিআই-এর যুগ্ম অধিকর্তা শ্রী এল বি এস যাদব, উত্তরপ্রদেশের বণিকসভা অ্যাসোচেমের সহ-সভাপতি শ্রী পীযূষ আগরওয়াল, শ্রী আর কে চৌধুরী, সহ-অধিকর্তা, এমএসএমই-ডিআই বারাণসী, শ্রী ডি এস মিশ্র, রামনগর ইন্ডাস্ট্রিজ এবং আরও অনেক অতিক্ষুদ্র, ক্ষুদ্র, মাঝারি মানের উদ্যোগগুলির প্রতিনিধিরা। 

বারাণসী অঞ্চলের যুগ্ম শিল্প কমিশনার শ্রী উমেশ সিং অধ্যাপক (ডঃ) হিরানীর উদ্যোগের প্রশংসা করে বলেন, বর্তমান অক্সিজেন সংকটের মোকাবিলায় সিএসআইআর-সিএমইআরআই প্রস্তুত অক্সিজেন বর্ধক এই যন্ত্রটি কোভিড রোগীদের চিকিৎসায় যথেষ্ট সাহায্য করবে। তিনি এও জানান, খুব অল্ক সময়ের মধ্যে বারাণসী এবং সংলগ্ন অঞ্চলে অক্সিজেন কারখানা স্থাপন করা হয়েছে এবং আরও কয়েকটি কারখানা গড়ে তোলার পরিকল্পনা রয়েছে। সিএসআইআর-সিএমইআরআই-এর অধিকর্তা এ প্রসঙ্গে জানান, বাজারে অক্সিজেন কনসেনট্রেটর পাওয়া গেলেও তাঁর সংস্থা প্রস্তুত ওইইউ যন্ত্রে অতিরিক্ত বেশ কয়েকটি বৈশিষ্ট্য রয়েছে যেগুলি বাড়িতে-বাড়িতে এবং ছোট ছোট মহল্লায় যে চিকিৎসা কেন্দ্রগুলি রয়েছে অথবা প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চলে যে ছোট ছোট চিকিৎসাকেন্দ্র রয়েছে ব্যবহার করা যেতে পারে। এই যন্ত্রে রয়েছে এই যন্ত্রে দ্বিস্তরীয় পজিটিভ এয়ার ওয়েভ প্রেশার (বিআইপিএপি)। প্রত্যন্ত অঞ্চলে ছোট ছোট হাসপাতালেও এই যন্ত্রটি ব্যবহার করা যেতে পারে হাসপাতালগুলির মিনি আইসিইউ-তে। কোভিড পরবর্তী পরিস্থিতিতেও অসুস্থ বয়স্ক ব্যক্তি, অপরিণত শিশুদের ক্ষেত্রে অক্সিজেন থেরাপির কাজে এই যন্ত্র ব্যবহার করা যেতে পারে। অধ্যাপক (ডঃ) হিরানী কথাপ্রসঙ্গে এও জানান, তাঁর সংস্থা প্রযুক্তিগত প্রশিক্ষণ এবং কাঁচামালের উৎস বিষয়ে সব ধরণের সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিতে প্রস্তত। এছাড়া, রক্ষণাবেক্ষণ এবং সমস্যা সমাধানে প্রযুক্তি হস্তান্তর করার বিষয়েও ভার্চুয়াল বৈঠকের ব্যবস্থা করা হবে প্রয়োজনে। উল্লেখ্য, সিএসআইআর-সিএমইআরআই প্রযুক্তি ব্যবহার দেশীয় উৎপাদকদের তৈরি ১ লক্ষ বহনযোগ্য অক্সিজেন কনসেনট্রেটর সংগ্রহের জন্য পিএম কেয়ার্স তহবিলের অর্থ মঞ্জুর করেছে কেন্দ্র। এমএসএমই-ডিআই-এর যুগ্ম অধিকর্তা শ্রী এল বি এস যাদব দেশে অক্সিজেনের চাহিদা ও সরবরাহের ব্যবধান দূর করতে দুর্গাপুরের সিএসআইআর-সিএমইআরআই-এর গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকার কথা ওয়েবিনারে উল্লেখ করেন। এই সংস্থারই যুগ্ম অধিকর্তা শ্রী রাজেশ কুমার চৌধুরী অন্তে ধন্যবাদজ্ঞাপন সূচক বক্তব্য রাখেন।

Advertisements
IBGNewsCovidService
Bloodrush-2